১২:১৮ অপরাহ্ণ - শনিবার, ১৭ নভেম্বর , ২০১৮
Breaking News
Download http://bigtheme.net/joomla Free Templates Joomla! 3
Home / রাজনীতি / অন্যান্য দলের খবর / সংরক্ষিত নারী আসনের বিলুপ্ত চায় খেলাফত আন্দোলন

সংরক্ষিত নারী আসনের বিলুপ্ত চায় খেলাফত আন্দোলন

ঢাকা, ০২ অক্টোবর, ২০১৭ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): আগামীতে জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত নারী আসন না রাখার দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ খেলাফত  আন্দোলন। দলটির মতে নারীদের সব আসনে নির্বাচনে অংশগ্রহণের সুযোগ থাকায় সংসদে সংরক্ষিত মহিলা আসন বিলুপ্ত করা উচিত। আসন্ন সংসদ নির্বাচন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে অনুষ্ঠানের দাবি জানিয়েছে দলটি। এছাড়া দুর্নীতিবাজ, দেশদ্রোহী, কালো টাকার মালিক, ঋণখেলাপির সঙ্গে জড়িত পরিবারবর্গকে নির্বাচনে অযোগ্য ঘোষণার দাবি জানায় খেলাফত আন্দোলন।

সোমবার বিকালে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সঙ্গে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় এ দাবি জানায় দলটি। প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নূরুল হুদার সভাপতিত্বে এ মতবিনিময় সভায় অন্যান্য নির্বাচন কমিশনাররা ছাড়াও ইসির ভারপ্রাপ্ত সচিব উপস্থিত ছিলেন। ১৫ সদস্য বিশিষ্ট দলটির নেতৃত্ব দেন দলের চেয়ারম্যান মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ। এ পর্যন্ত ২০টি দলের সঙ্গে মতবিনিময় করল সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানটি।

মতবিনিময় সভায় নির্বাচন কমিশনকে নতজানু না হওয়ার দাবি জানায় খেলাফত আন্দোলন। নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর থেকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়সহ গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রণালয়গুলো ইসির অধীনে আনার দাবি জানান তারা। এছাড়া নির্বাচনে বিচারিক ক্ষমতা দিয়ে সেনা মোতায়েনের দাবি জানায় দলটি।

এছাড়াও দলটির অন্যান্য দাবির মধ্যে রয়েছে ইভিএম ব্যবহার না করা, সব দল ও প্রার্থীর সমানাধিকার নিশ্চিত করা, নির্বাচনসংক্রান্ত সব আইন বাংলায় করা, প্রার্থীদের জামানত ১০ হাজার টাকার মধ্যে রাখা, নির্বাচনী ব্যয় ১০ লাখ টাকার মধ্যে আনা, সব অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার ও লাইসেন্সকৃত সব অস্ত্র জমা নেয়া, প্রবাসীদের ভোটাধিকারের ব্যবস্থা করা ইত্যাদি।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে আইন সংস্কার, সীমানা পুনঃনির্ধারণসহ ঘোষিত পথনকশা অনুযায়ী সংলাপের আয়োজন করে ইসি। গত ৩১ জুলাই সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে সংলাপের মধ্য দিয়ে সংলাপ শুরু করে নির্বাচন কমিশন। পরে ১৬ ও ১৭ আগস্ট অর্ধশত গণমাধ্যম কর্মীদের সঙ্গে সংলাপ করে তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন পরামর্শ গ্রহণ করে ইসি।

ধারাবাহিক সংলাপের অংশ হিসেবে গত ২৪ আগস্ট থেকে নিবন্ধিত ৪০টি রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে বৈঠক শুরু করে ইসি। বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোটের সঙ্গে সংলাপের মধ্য দিয়ে রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সংলাপ শুরু হয়। আরও যেসব দলের সঙ্গে সংলাপ করবে ইসি

৫ অক্টোবর সকালে বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল (বাসদ), বিকালে জাকের পার্টি, ৮ অক্টোবর সকালে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জেএসডি) ও বিকালে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ), ৯ অক্টোবর জাতীয় পার্টি, ১০ অক্টোবর সকালে বিকল্পধারা বাংলাদেশ; বিকালে ইসলামী ঐক্যজোট, ১১ অক্টোবর সকালে বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টি, বিকালে বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি, ১২ অক্টোবর সকালে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি ও বিকালে গণতন্ত্রী পার্টি, ১৫ অক্টোবর বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি, ১৬ অক্টোবর সকালে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ ও বিকালে বাংলাদেশের সাম্যবাদী দল (এমএল), ১৮ অক্টোবর ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ, ১৯ অক্টোবর সকালে জাতীয় পার্টি-জেপি; বিকালে লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টি-এলডিপি।

এরপর ২২ অক্টোবর পর্যবেক্ষক, ২৩ অক্টোবর নারী নেত্রী এবং ২৪ অক্টোবর নির্বাচন বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে মতবিনিময় করবে ইসি। নির্বাচন কমিশন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

অন্যরা য়া পড়ছে...

Loading...



চেক

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওমরাহ পালন

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার রাতে এখানে পবিত্র …

জনগণ ছেড়ে বিদেশিদের কাছে কেন : ঐক্যফ্রন্টকে ওবায়দুল কাদের

গাজীপুর, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): শুক্রবার বিকেলে গাজীপুরের চন্দ্রায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক চার লেনে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

My title page contents