সম্প্রতি বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতির সভাপতি ইফতেখার উদ্দিন নওশাদের ওপর হামলার কারণে সিনেমা হল বন্ধের হুমকির পর এবার চিত্রনায়ক রিয়াজ, খল অভিনেতা মিশা সওদাগর ও প্রযোজক খোরশেদ আলম খসরুকে মানে তাদের ছবিকে প্রাথমিকভাবে বয়কটের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। আর এর পরিপ্রেক্ষিতেই কথাগুলো বললেন জনপ্রিয় নায়ক রিয়াজ।

সম্প্রতি সেন্সর বোর্ডের সামনে নওশাদের ওপর হামলা করে চলচ্চিত্র পরিবারের সদস্যরা। সেসময় সবার আগে মিশা, রিয়াজ ও খসরু নওশাদের গায়ে হাত তোলেন বলে অভিযোগ করে আসছেন নওশাদ। এ বিষয়ে রিয়াজ বলেন, ‘এটা সম্পূর্ণ বাজে কথা। সেদিন সেন্সর বোর্ডের সামনে তিন স্তরের নিরাপত্ত ছিল। সেখানে অনেক গণমাধ্যমকর্মীও ছিলেন। সেখানে প্রত্যেকের হাতেই ক্যামেরা ছিল। তবে আজ পর্যন্ত কেউ আমরা তার গায়ে হাত তুলছি এটা কেউ দেখাতে পারে নি। তারা তাহলে আইনের আশ্রয় নিচ্ছে না কেন? এটা কিন্তু বড় একটা প্রশ্ন।’

তবে রিয়াজের ধারণা, ইফতেখার উদ্দিন নওশাদ গ্রুপের কিছু লোক ইচ্ছে করেই একটি ঘটনা সাজানোর জন্য তার গায়ের পাঞ্জাবিটি ছিঁড়েছে। তিনি বলেন,‘কারণ কোথাও কেনো প্রমাণ নেই। অথচ তিনি আঙ্গুলের ইশারা আমাদের দিকে তুলে যাচ্ছেন। এটা তো ঠিক নয়।’

এদিকে এ ঘটনার জন্য চিত্রনায়ক রিয়াজ দু:খ প্রকাশ করে প্রিয়.কম’কে বলেন, ‘নওশাদ ভাইয়ের সাথে সেদিন যেটা ঘটেছে সেটি অনভিপ্রেত একটি ঘটনা। আর আমাদের শিল্পীদের কারও কাছ থেকেই বিষয়টি কাম্য নয়। আমরা জাতীয় স্বার্থে চলচ্চিত্রের স্বার্থে আমরা আন্দোলন করছি। তার হলে আমার অসংখ্য ছবি চলেছে। ব্যক্তিগতভাবে নওশাদ ভাইয়ের সঙ্গে আমার চমৎকার সম্পর্ক। তিনি আমাকে ভালো করে চেনন, জানেন। মারামারি করা আমার পেশা না। এ ধরনের ঘটনা ঘটা উচিত হয়নি। তবে যারাই এ ধরনের ঘটিয়েছে এজন্য আমি দুখ:প্রকাশ করছি।’