গত জুন মাসে টানা ৩/৪দিনের ভারী বর্ষণ ও পাহাড় থেকে নেমে আসা খরস্রোতে ছাপছড়ির কুমারীছড়ায় নব নির্মিত সেতুর বেইজের নিচ থেকে পলি মাটি সরে যাওয়ায় সেতুটির মাঝপথে ধসে গেছে। এতে সেতু দিয়ে সাধারণ মানুষের চলাচল ঝুকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে।

জানা যায়, দুর্গম পাহাড়ি এলাকার কারণে ও অবহেলিত ধোপাছড়ি ইউনিয়নের সাধারণ মানুষের দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে স্থানীয় সাংসদ নজরুল ইসলাম চৌধুরীর চেষ্টায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে ৫৬ লাখ ৮৯ হাজার ১০৬ টাকা ব্যয়ে ওই ইউনিয়নের ধোপাছড়ি ছাপাছড়ির কুমারি ছড়ার উপর সেতুটি নির্মাণ করা হয়।

চন্দনাইশ উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুৎফুর রহমান বলেন, এ ব্যাপারে চার সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আগামী ১৫ জুলাইয়ের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিল করা হবে। কাজে দুর্নীতির ব্যাপারে প্রমাণ পাওয়া গেলে ঠিকাদারের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।