৫:১২ অপরাহ্ণ - সোমবার, ১৯ নভেম্বর , ২০১৮
Breaking News
Download http://bigtheme.net/joomla Free Templates Joomla! 3
Home / রাজনীতি / আওয়ামী লীগ / একাদশ সংসদ নির্বাচনে মনোনয়ন পেতে পাবনা-১ আসনে আ.লীগে আলোচনায় ২, বিএনপিতে ৪

একাদশ সংসদ নির্বাচনে মনোনয়ন পেতে পাবনা-১ আসনে আ.লীগে আলোচনায় ২, বিএনপিতে ৪

ঢাকা, ২৭ মে, ২০১৭ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): একাদশ সংসদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পেতে পাবনা-১  (বেড়া-সাঁথিয়া) নির্বাচনী এলাকার তৃণমূল নেতাকর্মী ও দলীয় সমর্থকদের সঙ্গে কুশল বিনিময়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন এ এলাকার আওয়ামী লীগের চার নেতা। তারা এলাকার উন্নয়নে  নানা প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন।

বর্তমান সাংসদ ও সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শামসুল হক টুকু বিভিন্ন এলাকায় দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন। বসে নেই সাবেক তথ্য প্রতিমন্ত্রী অধ্যাপক আবু সাইয়িদ। এলাকার মানুষের সঙ্গে তারও রয়েছে নিবিড় যোড়াযোগ।

এছাড়া সাঁথিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নিজাম উদ্দিন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রনেতা সরদার সোহেল মাহমুদের নামও শোনা যাচ্ছে। ইতোমধ্যেই মনোনয়ন প্রত্যাশীরা নিজ নিজ এলাকায় গণসংযোগসহ ব্যানার ফেস্টুন লাগানোর কাজ করছেন।

পাবনা-১ (বেড়া- সাথিয়া) আসনে বর্তমান এমপি জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক, রাকসুর সাবেক জিএস ও সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শামসুল হক টুকু। সংস্কারপন্থি হওয়ায় এ আসনের আওয়ামী লীগের দাপুটে প্রার্থী বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ঠ সহচর সাবেক তথ্য প্রতিমন্ত্রী ড. অধ্যাপক আবু সাইয়িদ নবম সংসদে মনোনয়ন বঞ্চিত হলে কপাল খুলে যায় টুকুর। নবম সংসদে প্রথম বারের মত এমপি নির্বাচিত হয়ে প্রতিমন্ত্রী হিসেবে এলাকায় অনেক দুর্নাম কুড়িয়েছেন সাবেক এই স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী। বিশেষ করে তার ভাই বেড়া পৌরসভার মেয়র আব্দুল বাতেনের নানা অপকর্ম, স্বজনপ্রীতি, দুর্নীতি ও দলীয় নেতা কর্মীদের সঙ্গে দুরত্বের কারণে আগামী নির্বাচনে মনোনয়নের ক্ষেত্রে পিছিয়ে আছেন বর্তমান এমপি টুকু। সেক্ষত্রে এবার আওয়ামী লীগ থেকে আবার অধ্যাপক আবু সাইয়িদকে মনোনয়ন দিতে পারে। অধ্যাপক সাইয়িদ এলাকার সঙ্গে নিবিড় যোগাযোগ রেখে আসছেন। এলাকার লোকজন মনে করছেন, বিএনপি আগামী নির্বাচনে অংশ নিলে সাইয়িদই হবেন যোগ্য প্রার্থী।

বেড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল কাদের ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘বর্তমান সরকার বেড়া-সাঁথিয়া উপজেলায় ব্যাপক উন্নয়ন করেছে। সে জন্য আবারও মানুষ নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করবেন।’ তিনি বলেন, ‘দুজন প্রার্থীই যোগ্য তাদের বিষয়ে কেন্দ্র সিদ্ধান্ত নেবে। তবে যাকেই দলীয় মনোনয়ন দেয়া হোক না কেন তাকেই জয়যুক্ত করতে হবে।’

বিএনপির আলোচনা চার জনকে ঘিরে

বিএনপি থেকে সাবেক সাংসদ মেজর (অব.) মঞ্জুর কাদের, বিএনপি নেতা সাংবাদিক আব্দুল আজিজ, কেন্দ্রীয় তাঁতিদলের সহ সভাপতি ইউনুস আলী আলোচনায় আছেন। অপরদিকে জামায়াত থেকে মতিউর রহমান নিজামীর ছেলে ব্যারিস্টার নাজিব মোমেনের নাম শোনা যাচ্ছে।

এছাড়া জাতীয় পার্টি থেকে জেলা জাতীয় পার্টির নেতা নাসির উদ্দিনেরও নাম শোনা যাচ্ছে।

পাবনা জেলা বিএনপির দপ্তর সম্পাদক জহুরুল ইসলাম ঢাকাটাইমসকে বলেন, পাবনা-১ (বেড়া-সাঁথিয়া) আসনে যোগ্য প্রার্থীই দেবে দল। কারণ হিসেবে তিনি বলেন, বর্তমান সাংসদ ও সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী হিসেবে এলাকায় অনেক দুর্নাম কুড়িয়েছেন। সেই কারণে এলাকার মানুষ বিএনপিকেই চায়। সে কারণে এবার সৎ, যোগ্য ব্যক্তিকেই দলীয় মনোনয়নের জন্য কেন্দ্রে তালিকা পাঠানো হবে। সুষ্ঠু নির্বাচন হলে বিএনপিই জয়লাভ করবে বলে আশা করেন তিনি।

অন্যরা য়া পড়ছে...

Loading...



চেক

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওমরাহ পালন

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার রাতে এখানে পবিত্র …

জনগণ ছেড়ে বিদেশিদের কাছে কেন : ঐক্যফ্রন্টকে ওবায়দুল কাদের

গাজীপুর, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): শুক্রবার বিকেলে গাজীপুরের চন্দ্রায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক চার লেনে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

My title page contents