১১:৩৯ অপরাহ্ণ - মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর , ২০১৮
Breaking News
Download http://bigtheme.net/joomla Free Templates Joomla! 3
Home / জরুরী সংবাদ / প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর যে সফল হয়নি সেটা তার নিজের বক্তব্যেই প্রমাণ হয়েছে : মির্জা ফখরুল

প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর যে সফল হয়নি সেটা তার নিজের বক্তব্যেই প্রমাণ হয়েছে : মির্জা ফখরুল

ঢাকা, ১১ এপ্রিল, ২০১৭ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): আজ মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে দৈনিক আমার দেশ পত্রিকা বন্ধের চার বছর পূর্তিতে এক সমাবেশে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভারত সফর যে সফল হয়নি সেটা তার নিজের বক্তব্যেই প্রমাণ হয়েছে বলে দাবি করেছেন  বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, সরকারের নতজানু পররাষ্ট্রনীতির কারণে ভারত থেকে কোনো কিছু আদায় করতে পারবে না।

গত শুক্রবার চার দিনের সফরে ভারত যান প্রধানমন্ত্রী। তিনি ফেরেন গত সোমবার। এই সফরে বেশ কিছু চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক হলেও তিস্তার পানিবণ্টনে চুক্তি হয়নি।

বিএনপি এই সফর নিয়ে সমালোচনামূখর দুই কারণে। এর একটি তিস্তা চুক্তি না হওয়া এবং দ্বিতীয়টি প্রতিরক্ষা বিষয়ে সমঝোতা স্মারক সই। দলের নেতাদের অভিযোগ, এই সমঝোতা স্মারকের মাধ্যমে বাংলাদেশের প্রতিরক্ষা খাত ভারতের কাছে উন্মুক্ত হয়ে গেল।

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন, সরকার যা কিছু বাকি ছিল তার সবই ভারতের কাছে বেচে দিয়েছে আর পাঁচ বছর পর কাগজপত্র করে দেবে তারা।

ফখরুল বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী ভারত সফর করে আসলেন কিন্তু সব পত্রপত্রিকায় একই সুর যে বাংলাদেশের কোনো আশা পূরণ হয়নি। বাংলাদেশের মানুষ নূন্যতম যে পানির হিস্যা চেয়েছিলো তাও হয়নি। আর প্রধানমন্ত্রী নিজেই বলেছেন ‘কুছ তো মিলা’। তাই কি পেয়েছি আমরা, তা তিনিই বলেছেন।

ফখরুল বলেন, ‘বাংলাদেশের যা পাওয়া উচিত ছিলো তা আমরা পাইনি। কিন্তু সরকার তো বলতেছে দুই দেশের সম্পর্ক নাকি উচ্চতর পর্যায়ে আছে।’

বাংলাদেশে জঙ্গি তৎপরতার জন্য ভারতের দিকে সন্দেহ মির্জা ফখরুলের। তিনি বলেন, ‘যারা ১৯৭১ সালের পর বাংলাদেশকে একটি নিয়ন্ত্রিত রাষ্ট্রে পরিণত করার চেষ্টা করেছিল। তারা তাদের নীলনকশা বাস্তবায়ন করতে অনেক দূর এগিয়ে গেছে। এ কারণেই মাহমুদুর রহমানকে মিথ্যা মামলায় কারাগারে থাকতে হয়েছে, আমার দেশ, চ্যানেল ওয়ান বন্ধ হয়েছে।’

এই অবস্থা থেকে উত্তরণের জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ করে রাজপথে নামতে নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান বিএনপি মহাসচিব।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেন, ‘ভারতের সঙ্গে যতগুলো চুক্তি করা হলো তার সঙ্গে বাংলাদেশের মানুষের সম্পর্ক রয়েছে। কিন্তু স্বাধীতার ৪৬ বছর পর এসে কি ভারতের কাছ থেকে সবদিক থেকে সক্ষমতা অর্জন করতে হবে? তাহলে কি এতদিনে আমরা সক্ষমতা হারিয়ে ফেলেছি?’।

ঢাকা বিশ্ববিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য এমাজউদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘আমাদের প্রত্যাশা ছিল সীমান্তে মৃত্যুর যে কাহিনি আমরা প্রত্যক্ষ করছি, আর এমন কোনো হত্যাকাণ্ড ঘটবে না- সেই বিষয়ে আলাম হবে। কিন্তু তা হয়নি। আবার তিস্তার পানি নিয়ে প্রধানমন্ত্রী কথা বলবেন ভারতের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে। কিন্তু তিনি তা না করে কথা বলেছেন একটি অঙ্গরাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে। তাহলে আমাদের প্রত্যাশাটা পূরণ হলো কোথায়?’

এমাজউদ্দিন বলেন, ‘ভারত ৫০ কোটি ডলার ঋণ দেবে। এই টাকায় অস্ত্র কিনতে হবে ভারত থেকে। কিন্তু তারাই আবার যুক্তরাষ্ট্র, ফ্রান্স, ব্রিটেন থেকে অস্ত্র কেনে। এই অবস্থায় ভারত থেকে অস্ত্র কিনলে সেটার মান কেমন হবে তা নিয়ে তো প্রশ্ন থেকেই যায়।’

দৈনিক আমার দেশের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমানের সভাপতিত্বে সভায় গণস্বাস্থ্যকেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা জাফরুল্লাহ চৌধুরী, বিএনপির সহসভাপতি সেলিমা রহমান, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সাবেক অধ্যাপক দিলারা রহমান প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

অন্যরা য়া পড়ছে...

Loading...



চেক

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওমরাহ পালন

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার রাতে এখানে পবিত্র …

জনগণ ছেড়ে বিদেশিদের কাছে কেন : ঐক্যফ্রন্টকে ওবায়দুল কাদের

গাজীপুর, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): শুক্রবার বিকেলে গাজীপুরের চন্দ্রায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক চার লেনে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

My title page contents