৯:২৮ অপরাহ্ণ - মঙ্গলবার, ১৮ সেপ্টেম্বর , ২০১৮
Breaking News
Download http://bigtheme.net/joomla Free Templates Joomla! 3
Home / রাজনীতি / অন্যান্য দলের খবর / বাংলাদেশে রাজতন্ত্র নয়, সংসদীয় গণতন্ত্র কার্যকর রয়েছে : তথ্যমন্ত্রী

বাংলাদেশে রাজতন্ত্র নয়, সংসদীয় গণতন্ত্র কার্যকর রয়েছে : তথ্যমন্ত্রী

enu1   03.11.15ঢাকা, ০৩ নভেম্বর ২০১৫ (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): আজ মঙ্গলবার দুপুরে তথ্য অধিদপ্তরের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, বেগম খালেদা জিয়া অঘটন ঘটানোর রাজনীতির নেতৃত্ব দিচ্ছেন ও ক্ষমতার লোভে গণতান্ত্রিক পথ ছেড়ে রাষ্ট্র ও জনগণের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন।

তথ্যমন্ত্রী তার লিখিত বক্তব্য বলেন, বেগম খালেদা জিয়া গত পরশু লন্ডনে যা বলেছেন তা ডাহা মিথ্যা কথা। এ বিষয়ে আমাদের বক্তব্য হলো, ‘সামরিক শাসকের স্ত্রী ও হাওয়া ভবনের তারেক রহমানের মা’ এর মুখে এসব কথা ‘ভূতের মুখে রাম নাম’ ছাড়া আর কিছুই না। বেগম জিয়া রাজতন্ত্র বা গণতন্ত্র কোনোটির মানেই বুঝেন না, আর যদি কিছু বুঝেন তাহলে বুঝেও অসত্য বলছেন। দেশ সংবিধান অনুযায়ী চলছে। সংবিধান, আইন, বিধি, বিধানে সব কিছু সুনির্দিষ্ট করে দেয়া আছে, সরকার-প্রশাসন কিভাবে চলবে, কার কতটুকু ক্ষমতা, এখতিয়ার। প্রধানমন্ত্রী সংবিধান ও আইনের উর্ধ্বে উঠে যা ইচ্ছা তাই করার কোনো এখতিয়ার রাখেন না এবং এমন কিছু করছেনও না।

তথমন্ত্রী বলেন, সত্যিকারার্থে দেশে বিচার বিভাগ স্বাধীন। সরকার প্রশাসন সংবিধান বা আইনের বাইরে কোথায়ও কোনো পা দিলেই, যেকোনো ক্ষতিগ্রস্ত বা সংক্ষুব্ধ ব্যক্তি আদালতে প্রতিকার চাইতে পারেন, প্রতিকারও পান। স্বৈরতান্ত্রিক কায়দায় দেশ চালানো, হিটলারি কায়দায় দেশ চালানো হলে বেগম জিয়া, বিএনপি কিভাবে রাজনীতি করছেন? বেগম জিয়ার এসব বক্তব্য প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক গণমাধ্যমে প্রকাশিত, প্রচারিত হচ্ছে কীভাবে? দেশে সংবিধান অনুযায়ী নিয়মিত জাতীয় নির্বাচন থেকে শুরু করে সকল পর্যায়ের স্থানীয় সরকার নির্বাচন হচ্ছে। বিএনপি আপন খেয়ালে কখনও নির্বাচন বর্জন করছে, কখনও অংশগ্রহণ করছে, কখনও বিজয়ী হচ্ছে, কখনও পরাজিত হচ্ছে। বিএনপি প্রার্থী নির্বাচনে জিতলে নির্বাচন ভালো, হারলে খারাপ।

জাসদ সভাপতি উপস্থিত সাংবাদিকদের বলেন, আমাদের বিচার বিভাগ স্বাধীন। গণমাধ্যম স্বাধীন। সংসদ অধিবেশন নিয়মিত অনুষ্ঠিত হচ্ছে। সংসদে এবং সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে সরকার ও প্রশাসনের কর্তা ব্যক্তিরা নিয়মিত জবাবদিহি করছে, ভুল করলে মন্ত্রী, সচিবরা তুলোধুনো হচ্ছে, কখনও কখনও সংসদীয় কমিটি ভুলের জন্য কঠোর ব্যবস্থাও নিচ্ছে। বেগম জিয়া জনসভা করছেন, দলের অফিসে যাচ্ছেন, নিজের অফিসে যাচ্ছেন। বক্তৃতা-বিবৃতি দিচ্ছেন, বিদেশে যাচ্ছেন। শুধু আগুন সন্ত্রাস চালাতে বাধা দিলেই ‘গণতন্ত্র নেই’ বলে মায়াকান্না জুড়ে দেয়া হচ্ছে।

তথ্যমন্ত্রী খালেদা জিয়ার বক্তব্যের জবাবে আরো বলেন, ‘এখন বাংলাদেশের মানুষ ভালো বা শান্তিতে না থাকলে, বেগম জিয়া পরিচালনায় আগুন সন্ত্রাস, নাশকতা, অন্তর্ঘাতের সময় কি ভালো ছিল? বাতাসে আগুনে পোড়া লাশের গন্ধ কি ভালো ছিল? উনার শাসনামল, হাওয়া ভবনের শাসনামল, খাম্বা শাসনামল কি ভালো ছিল? বিদ্যুৎহীনতায় অন্ধকারে ডুবে থাকা কি ভালো ছিল? ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলার কাল, বাংলা ভাইয়ের কাল, কিবরিয়া-আহসান উল্লাহ মাস্টার-মঞ্জুরুল ইমাম-মমতাজ হত্যার কাল কি ভালো ছিল?

তিনি বলেন, ‘তারা দাউদ ইব্রাহিমসহ মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন জঙ্গিগোষ্ঠীর সঙ্গে প্রত্যক্ষ যোগাযোগ করছেন বলে আমাদের কাছে তথ্য আছে। বাংলাদেশে সাম্প্রতিক সময়ে সংঘটিত অস্বাভাবিক ঘটনাগুলোর আলামতও সেই দিক ইঙ্গিত করছে’।

তিনি বলেন, ‘এই বিষয়ে আমাদের কাছে থাকা তথ্যের ভিত্তিতে কিছু আলামত মিলছে। বিষয়গুলো তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। মা-ছেলে বিদেশে বসে মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক বিভিন্ন জঙ্গিগোষ্ঠীকে কিভাবে বাংলাদেশে সক্রিয় করা যায় সে চেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে।’

সম্প্রতি বাংলাদেশে কয়েকটি হত্যার ঘটনায় কয়েকটি বিদেশি রাষ্ট্র নিজেদের নাগরিকদের বিষয়ে যে সতর্কতা জারি করছে তা ‘রাজনীতির’ অংশ হিসেবেও মন্তব্য করেন মন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশে যখন ৬৩ জেলায় একযোগে বোমা হামলা হয়েছিল, তখন কোনো দেশ সর্তকতা জারি করেনি। এখন সামান্য ঘটনাতেই তারা তা করছে-এটা প্রত্যাশিত নয়।’

ইংল্যান্ডে সোমবার খালেদা জিয়ার দেয়া বক্তব্যের প্রতিবাদ করে হাসানুল হক ইনু বলেন, ‘বাংলাদেশে রাজতন্ত্র নয়, সংসদীয় গণতন্ত্র কার্যকর রয়েছে। মিডিয়া স্বাধীনভাবে কাজ করছে। এ কারণেই বেগম জিয়ার বক্তব্য মিডিয়ায় প্রচার হচ্ছে। তিনি বিদেশ যেতে-আসতে পারছেন।’

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি জামায়াতকে দোষারোপ বা ধরার চেষ্টা আমরা করি না; নাশকতার ঘটনা তদন্তে যারা ধরা পড়েন তারা বিএনপি-জামায়াতের পদধারী নেতা। এগুলো উদ্দেশ্যপ্রণোদিত নয়। যারা নাশকতার সঙ্গে যুক্ত তাদের বিরুদ্ধেই শুধু ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।’

ব্লগার ও প্রকাশকদের ওপর গুপ্ত হত্যার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘ঘাতকগোষ্ঠী সুপরিকল্পিতভাবে সুফীবাদী ইসলামের সাধক ও মুক্তবুদ্ধির চর্চাকারীদের কণ্ঠস্বর স্তব্ধ করে দিতে চাইছে। তাদের দমনে সরকার সর্বাতক চেষ্টা করছে।’

বিএনপি-যুদ্ধাপরাধী জামাত-জঙ্গিবাদী গোষ্ঠী-হেফাজতের সাথে রাজনৈতিক সন্ধি করে যেভাবে আগুনসন্ত্রাস-অন্তর্ঘাত-নাশকতা হত্যা চালিয়েছে, তা নজিরবিহীন। ক্ষমতার লোভে অন্ধ হয়ে লাগাতার অবরোধ-নাশকতায় তিনি ৬৮জনকে আগুন বোমায় হত্যা করে ২০০০ মানুষকে আহত করে, আটশ’রও বেশি যানবাহন পুড়িয়ে, রেল-লঞ্চ পুড়িয়েও তার শান্তি হয়নি। কারণ তিনি ক্ষমতায় যেতে পারেননি। বরং নাশকতার সময় তার ৬১৭ জন কর্মী হাতেনাতে গ্রেফতার হয়েছে। তারপর একই ধরনের ঘটনা ঘটলে মানুষের আঙ্গুল খুব সহজেই বিএনপির দিকে উঠে। মানুষের এই ধারণা, সন্দেহ, আশংকা কিভাবে দূর করবেন?

তথ্যমন্ত্রী বেগম জিয়ার প্রতি চ্যালেঞ্জ ছুড়ে বলেন, লন্ডনে আপনি বলেছেন, গত সাত বছরে তিন হাজার নেতা-কর্মী খুন, ১ হাজার ২০০ শত গুম, ১২ জন ক্রসফায়ারে দেওয়া হয়েছে। আমাদের কাছে নাম-ঠিকানা উল্লেখ করে তালিকা দিন।

ইনু বলেন, উনি (খালেদা জিয়া) বা উনার দল আদর্শগতভাবেই জাতীয় ঐক্য বিরোধী। ৭১ এর মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে যে জাতীয় ঐক্য গড়ে উঠেছিল এবং জাতীয় ঐক্যের আদর্শগত ভিত্তি তৈরি হয়েছিল, যা সংবিধানে ধারণ করা হয়েছিল, জিয়াউর রহমান সেই জাতীয় ঐক্য ধ্বংস করেছিল। মুক্তিযুদ্ধে পরাজিত শক্তি, স্বাধীনতা বিরোধী শক্তিকে পুনর্বাসন করে, সংবিধান থেকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা নির্বাসিত করে, ইতিহাস ও ঐতিহাসিক সত্যকে ধামাচাপা দিয়ে, বিকৃত করে। জিয়া বা বেগম জিয়ার কাছে জাতীয় ঐক্য মানেই যুদ্ধাপরাধী, স্বাধীনতা বিরোধী, রাজাকার, আলবদরদের সাথে ঐক্য। বেগম জিয়ার জাতীয় ঐক্য মানেই যুদ্ধাপরাধীদের হালাল করা। উনি জাতীয় ঐক্য না বলে জামাতের সাথে ঐক্য বললে, উনার বলাটা সঠিক হবে।

খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ্য করে মন্ত্রী বলেন, ‘ঢাকায় বিএনপির কোন মিছিলে গুলি করে কয়জন কর্মীকে হত্যা-আহত করা হয়েছে? আর বিদ্যুৎ কেন্দ্র, রেল লাইনের ফিশ প্লেট খুলে চলন্ত ট্রেনের ঘুমন্ত যাত্রী হত্যা, যানবাহনে পেট্রোল বোমা নিক্ষেপ করে নিরীহ নারী-শিশু-যাত্রীকে আগুনে পুড়িয়ে মারা কি মুক্তিযুদ্ধ বা স্বাধীনতা সংগ্রামের সাথে তুলনীয়? জিয়া জাতীয় ঐক্য ধ্বংস করেছেন; বেগম জিয়া জঙ্গি-জামায়াত-রাজাকার নিয়ে জাতীয় ঐক্যের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন।’

অন্যরা য়া পড়ছে...

Loading...



চেক

বিকল্পের সন্ধানে কোটা বাতিলের প্রজ্ঞাপনে দেরি হচ্ছে : ওবায়দুল কাদের

ঢাকা, ১৩ মে ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণা অনুযায়ী সরকারি চাকরিতে কোটা …

স্যাটেলাইট মহাকাশে ঘোরায় বিএনপির মাথাও ঘুরছে : মোহাম্মদ নাসিম

ফেনী, ১৩ মে ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ মহাকাশে উৎক্ষেপণ হওয়ায় বিএনপির মাথাও ঘুরছে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

My title page contents