৬:৫১ পূর্বাহ্ণ - সোমবার, ১৯ নভেম্বর , ২০১৮
Breaking News
Download http://bigtheme.net/joomla Free Templates Joomla! 3
Home / জরুরী সংবাদ / ঈদ উদযাপন শেষে কমলাপুরে রাজধানী ফেরত মানুষের ঢল : ট্রেন পৌঁছছে বিলম্বে

ঈদ উদযাপন শেষে কমলাপুরে রাজধানী ফেরত মানুষের ঢল : ট্রেন পৌঁছছে বিলম্বে

kamlapur station   10.7.16ঢাকা, ১০ জুলাই, ২০১৬ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): স্বজনদের সঙ্গে ঈদ উদযাপন শেষে কর্মস্থলের ফিরছে মানুষ। রাজধানীতে ফেরা মানুষের ভিড় ট্রেনে-বাসে-লঞ্চে। যেভাবে লোকজন ফিরতে শুরু করেছে, তাতে দু-এক দিনের মধ্যেই চিরাচরিত ব্যস্ততায় দেখা যেতে পারে রাজধানীকে।

রবিবার সপ্তাহের প্রথম কর্মদিবসে রাজধানীর কমলাপুর রেলস্টেশনে রাজধানী-ফেরত মানুষের ঢল নেমেছিল। বগি ভর্তি যাত্রী নিয়ে প্রতিটি ট্রেন থামছে প্ল্যাটফর্মে। তবে যাত্রীরা বলছেন, এটি ট্রেনের প্রকৃত ভিড়ের চিত্র নয়। কেননা বিমানবন্দর রেলস্টেশনে নেমে গেছেন অর্ধেকের মতো যাত্রী।

সাপ্তাহিক ছুটির সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর নির্বাহী আদেশ ও ঈদের ছুটি মিলিয়ে মোট নয় দিনের টানা ছুটি শেষ হয়েছে গতকাল শনিবার। ঈদের ছুটি শেষে কর্মস্থলে যোগ দিতে গতকাল থেকেই ফিরতে শুরু করেছেন কর্মজীবীরা।

আজ রবিবার প্রায় প্রতিটি ট্রেনই কমলাপুর রেলস্টেশনে পৌঁছেছে দেরিতে। রংপুর এক্সপ্রেস ট্রেনটি পৌঁছার কথা ছিল ৬টা ৫ মিনিটে, কিন্তু ৪ ঘণ্টা বিলম্বে সাড়ে ১০টায় পৌঁছায় ট্রেনটি। দিনাজপুর থেকে ছেড়ে আসা একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটিও প্রায় সাড়ে ৪ ঘণ্টা দেরিতে এসে পৌঁছায় কমলাপুর রেলস্টেশনে।

কমলাপুর রেলস্টেশনে আসা প্রতিটি ট্রেনই ছিল প্রায় পূর্ণ। প্ল্যাটফর্মে ট্রেন থামার পর বগিগুলো থেকে পিলপিল করে  নেমে আসে রাজধানীতে ফেরা মানুষ। ক্লান্ত-শ্রান্ত। কারণ ট্রেণ পৌঁছেছে চার ঘণ্টা দেরিতে। অনেককে একাধিক ব্যাগ ও ছেলে-মেয়ে নিয়ে ট্রেন থেকে নামতে দেখা গেছে। যাত্রীদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, ট্রেন দেরি করাতে তাদের অনেক ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে তাদের।

রংপুর থেকে রংপুর এক্সপ্রেস ট্রেনে আসা বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত মারুফ হাসান বলেন, “প্রায় নয় দিন বাড়িতে বাবা-মা, ভাইবোনের সঙ্গে ছুটি কাটিয়ে ঢাকা ফিরলাম। ট্রেনে প্রচণ্ড ভিড় ছিল। তার ওপর প্রতিটি স্টেশনে ট্রেন দীর্ঘক্ষণ দাঁড়ানোর কারণে দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে।”

রংপুর এক্সপ্রেসে স্বামীর সঙ্গে ফিরেছেন উর্মি আক্তার। সঙ্গে তার তিন বছরের সন্তান। তিনি বলেন, “এবারের ঈদ ভালোই কটল। তবে ট্রেনের ভোগান্তিতে ছোট বাচ্চাকে নিয়ে আসতে খুব কষ্ট হয়েছে। যাত্রীদের অনেক চাপ ছিল। তার ওপর প্রায় প্রতিটি স্টেশনে দাঁড়িয়েছে ট্রেন।”

স্বজনদের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি শেষে দিনাজপুর থেকে একতা এক্সপ্রেসে ঢাকা ফিরেছেন সম্পা আক্তার। তিনি একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত। সম্পা বলেন, “স্বজনদের ছেড়ে ঢাকা আসতে মন চায় না। তারপরও কর্মের তাগিদে আসতে হয়। ট্রেনে যাত্রীদের প্রচুর চাপ ছিল। কিন্তু বেশি কষ্ট হয়েছে ট্রেন দেরি করায়।”

ট্রেন দেরিতে আসার কারণ জানতে কথা হয় কমলাপুর রেলস্টেশনের স্টেশন মাস্টার মো. সাখাওয়াত হোসেন খানের সঙ্গে। তিনি বলেন, দীর্ঘ ছুটি শেষে মানুষ কর্মস্থলে ফিরছে। সপ্তাহের প্রথম কর্মদিবসে যাত্রীদের প্রচণ্ড চাপ থাকায় দু-এক মিনিট করে বেশি দাঁড়ানোয় ট্রেনগুলো গন্তব্যে পৌঁছতে একটু দেরি হচ্ছে। যাত্রীদের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে স্টেশনগুলোতে কিছু সময় বেশি দাঁড়ানো হচ্ছে ট্রেন।” এ ছাড়া অন্য ট্রেনগুলো সঠিক সময়ে কমলাপুর রেলস্টেশনে পৌঁছেছে বলে জানান তিনি।

স্টেশন মাস্টার বলেন, ফিরতি মানুষের ভিড় সামলাতে পুলিশ ও আরএনবির পক্ষ থেকে স্টেশনে হেল্প ডেক্স খোলা হয়েছে। কোনো ধরনের সহিংসতা বা অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা এড়াতে নিরাপত্তাব্যবস্থা বাড়ানো হয়েছে।

এদিকে ঈদ উপলক্ষে বাড়ি যাওয়া ও রাজধানীতে ফেরার জন্য বাংলাদেশ রেলওয়ে সাত জোড়া স্পেশাল ট্রেন চলছে। সৌজন্যে ঢাকাটাইমস

অন্যরা য়া পড়ছে...

Loading...



চেক

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওমরাহ পালন

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার রাতে এখানে পবিত্র …

জনগণ ছেড়ে বিদেশিদের কাছে কেন : ঐক্যফ্রন্টকে ওবায়দুল কাদের

গাজীপুর, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): শুক্রবার বিকেলে গাজীপুরের চন্দ্রায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক চার লেনে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

My title page contents