২:০৭ পূর্বাহ্ণ - মঙ্গলবার, ১৩ নভেম্বর , ২০১৮
Breaking News
Download http://bigtheme.net/joomla Free Templates Joomla! 3
Home / আন্তর্জাতিক / গরুর মাংস নিয়ে কী ছিলো মহাত্মা গান্ধীর অবস্থান ছিল

গরুর মাংস নিয়ে কী ছিলো মহাত্মা গান্ধীর অবস্থান ছিল

Gandhiইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ০৫ অক্টোবর ২০১৫ (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): যে ভারতে গরুর মাংস রাখা এবং খাওয়ার গুজবে সম্প্রতি ভারতের উত্তর প্রদেশে পিটিয়ে হত্যা করা হয় মোহাম্মদ আখলাক নামের ৫০ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে; সেই ভারতে জন্ম নেয়া বিশ্বনাগরিক মহাত্মা গান্ধী কী ভাবতেন  গরুর মাংস নিয়ে? গরু জবাই সম্পর্কে মহাত্মা গান্ধীর মতামত নিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে দ্যা অয়ার। প্রার্থনা প্রভাচন গ্রন্হে গরু জবাই বন্ধ সম্পর্কে নিজের অবস্থানের কথা তুলে ধরেন গান্ধী। তার সে অবস্থান নিয়ে দ্যঅয়ারে প্রকাশিত প্রতিবেদনটির চৌম্বক অংশ তুলে ধরা হলো পাঠকদের জন্য।

গান্ধী বলছেন, ‘রাজেন্দ্র বাবু (ভারতের প্রথম রাষ্ট্রপতি) আমাকে বলেছেন গরু জবাই বন্ধ নিয়ে তিনি প্রচুর পোস্টকার্ড পাচ্ছেন এবং এ সংখ্যা প্রায় ৫০ হাজার। তবে আমি রাজেন্দ্রকে এ বিষয়টি নিয়ে পূর্বেই বলেছি। এত টেলিগ্রাম ও চিঠির বন্যা বয়ে যাচ্ছে কেন? এসবে সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হবে না। ‘

গান্ধী বলেছেন, ‘অন্য এক টেলিগ্রামে আমার এক বন্ধু আমাকে বলেছেন এ কারণে তিনি উপস করা শুরু করেছেন। কিন্তু ভারতে গরু জবাই বন্ধের বিরুদ্ধে কোন আইন হবে না। এতে কোন সন্দেহ নেই যে হিন্দুরা গরু জবাই বন্ধ করতে চান। আমিও গরুকে রক্ষার অঙ্গীকার দিয়েছি কিন্তু পাশাপাশি আমাকে এ বিষয়টিরও চিন্তা করতে হয়ে যে আমার ধর্ম কিভাবে সকল ভারতীয়র ধর্ম হয়ে উঠতে পারে। আর এরকম সিদ্ধান্ত যেসব ভারতীয় হিন্দু না তাদের উপর বল প্রয়োগ করা হবে।’

গান্ধী লিখেছেন, ‘অনেকেই গলা ফাঁটিয়ে বলছেন এতে কোন সমস্যা হবে না। আমরা কোরআনের অনেক আয়াত পাঠ করি। কিন্তু কেউ যদি আমাকে এই আয়াত পড়ার জন্য বাধ্য করতো তবে আমি সেটা পছন্দ করতাম না। ঠিক সেভাবেই কেউ যদি গরু জবাই বন্ধ না করে তবে আমি কিভাবে তাকে এটা না করার জন্য বাধ্য করতে পারি? ভারতীয় ইউনিয়নে তো শুধুমাত্র হিন্দুরাই আছে এরকম না। এখানে অনেক মুসলিম, পার্সি, খ্রিষ্টান এবং অন্য ধর্মালম্বীরা রয়েছেন।’

গান্ধী মনে করতেন ভারতের হিন্দুরা একটি ভুল ধারণার মধ্যে রয়েছেন। ‘তারা মনে করছেন ভারত হিন্দুদের রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। তবে ভারত তাদের প্রত্যেকেরই রাষ্ট্র যারা এখানে বাস করে। আমরা যদি এখানে গরু জবাই বন্ধ করি এবং পাকিস্তানে যদি তার বিপরীত ঘটে তখন ফলাফল কি হবে? মনে করুন তারা বললো শরীয়ত এবং ধর্মীয় নিয়মানুযায়ী মন্দিরে যাওয়া নিষেধ। সুতরাং কোন হিন্দুই মন্দিরে যেতে পারবেন না। আমি যদি পাথরের মধ্যে স্রষ্টাকে খুঁজে পাই তবে আমার বিশ্বাসের জন্য অন্যকে কিভাবে ক্ষতিগ্রস্থ করতে পারি। আমাকে যদি মন্দিরে যেতে বারণ করা হয় তবুও আমি মন্দিরে যাব।’

মহাত্মা মনে করতেন কিছু হিন্দু গরু জাবাইকে প্রণোদিত করে। ‘সত্যিই তারা এটা নিজের নামে করেন না। তবে যারা অষ্ট্রেলিয়াসহ বিভিন্ন দেশে গরু রপ্তানী করেন এবং সেখানে জবাইয়ের পর সেগুলোর চামড়া দিয়ে জুতা বানিয়ে ভারতে ফেরত পাঠায়? আমি একজন গোঁড়া বৈষ্ণব হিন্দুকে চিনি যিনি তার সন্তানদের গরুর মাংসের স্যুপ খাওয়ান। তার এ কাজের বিষয়ে আমার প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, গরুকে ঔষধ হিসেবে ব্যবহারে কোন পাপ নেই।’

ধর্ম কী সে বিষয়টি না জেনেই আমরা শুধু গরু জবাই বন্ধের জন্য চিল্লাচিল্লি করি বলে মনে করতেন গান্ধী। তার পরামর্শ ছিলো বিষয়টি সংবিধানের আওতায় না নেয়ার। তিনি লিখেছেন, ‘আমাকে অনেকে প্রশ্ন করে, মুসলামানরা এত নৃশংস কাজ করেছে যে এই ধর্মের কাকে আমরা বিশ্বাস করবো তা নিয়ে আমরা সন্দিহান, ভারতীয় ইউনিয়নের মুসলমানদের প্রতি আমাদের ব্যবহার কেমন হওয়া উচিত। পাকিস্তানে অমুসলিমদের কী করা উচিত?’

‘এ প্রশ্নের জবাব আমি পূর্বেই দিয়েছি এবং আমি আবারো বলছি ভারতে বিভিন্ন ধর্ম বিশেষ করে হিন্দু, শিখ, মুসলমান এবং খ্রিষ্টানরা কিভাবে জীব-যাপন করছেন এবং ভারতের প্রতি তারা কি দায়িত্ব পালন করছেন সে বিষয়টি দেখতে হবে। পাকিস্তান নিজেদের মুসলমান রাষ্ট্র বলতে পারে কিন্তু ভারতীয় ইউনিয়ন সকলেরই। আমাদের সকলের মধ্যেই এখন ভীরুতা রয়েছে। একে ঝেড়ে ফেলে সকলকেই সাহসী হতে হবে। মুসলমানদের সামনে নিজেকে সাহসী প্রমাণ করার দরকার নেই।’

নৈরাজ্যবাদী দর্শনে  আলোকিত গান্ধী প্রশ্ন তুলেছিলেন, ‘আমরা কি ভারতীয় ইউনিয়নের কোটি কোটি মুসলমানকে দাস বানিয়ে রাখতে পারি? যে অন্যকে দাসে পরিণত করে সে নিজেও একদিন দাসে পরিণত হয় বলে মনে করতেন তিনি। সৌজন্যে দ্যা অয়ার

অন্যরা য়া পড়ছে...

Loading...



চেক

সাংবাদিক জামাল খাশোগিকে হত্যায় জড়িত ছিল ১৫ জনের একটি দল

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): তুরস্কের ইস্তাম্বুলের সৌদি দূতাবাসের ভেতরে সাংবাদিক জামাল …

মার্কিন ফার্স্টলেডি মেলানিয়ার বিমানে ধোঁয়া, জরুরি অবতরণ

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ইং (বাংলা-নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম): মার্কিন ফার্স্টলেডি মেলিনিয়া ট্রাম্পকে বহনকারী একটি বিমান …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

My title page contents